প্রাকৃতিক চিকিৎসায় সহজে রোগ নিরাময়

0
3436

প্রাকৃতিক বিধান মতে, মানুষের শরীরে রোগ একটাই, তা হলো “হ্রাসকৃত অক্সিজেন, টক্সিনে ভরা, ধীরগতি সম্পন্ন দূষিত রক্ত প্রবাহ” যা আমাদের শরীরকে স্বাভাবিক চলাফেরায় বাধা প্রদান করে এবং শরীরের প্রধান শক্তি জৈব বিদ্যুৎ প্রবাহ এবং সঞ্চলন পদ্ধতীকে বিনষ্ট করে সেই সাথে বিভিন্ন অঙ্গকে বিষময় করে তোলে। এই অবস্থা থেকেই শরীরে নানা ধরণের ভয়াবহ ডিজেনারেটিভ রোগের সৃষ্টি হয় যা মূলত ঐ দূষিত রক্তের উপসর্গ মাত্র। ডিজেনারেটিভ রোগের তালিকা অনেক বড় এবং নতুন নতুন উপসর্গ এই তালিকাকে দিনে দিনে সমৃদ্ধ করে চলছে। দূষিত রক্ত থেকে সৃষ্ট এই উপসর্গগুলোকে চিকিৎসা বিজ্ঞানীগণ ডিজেনারেটিভ রোগ বলে আখ্যায়িত করলেও আমরা সাধারণ মানুষ এই সব রোগকে বিভিন্ন নামে জানি যেমন –

  • ব্লাড প্রেশার
  • ডায়েবেটিস
  • এলার্জি
  • অ্যানোমিয়া
  • এ্যাজমা
  • কোষ্ঠকাঠিণ্য
  • ডায়েরিয়া
  • গেঁটে বাঁত
  • গ্যাস্ট্রিক, অজীর্ণ, বদহজম
  • ক্যান্সার
  • কিডনির নানা ধরণের প্রদাহ
  • নানা প্রকার চর্মরোগ
  • হৃদরোগ
  • চোখে কম দেখা
  • সব সময় ঠান্ডা লাগার প্রবণতা
  • ওজন বেড়ে যাওয়া
  • পেটে আলসার
  • ঘাড় ও কোমড়ে ব্যথা
  • নানা ধরণের মেয়েলি রোগ
  • কানে কম শোনা
  • থাইরয়েড সমস্যা
  • নানা ধরণের মাথা ব্যথা
  • ফ্রোজেন সোল্ডার
  • স্পন্ডালাইসিস

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা হ্রাস পাওয়া থেকে এইডস ছাড়া ও আরো শত শত রোগ না জানা এবং অজানা রোগ হতে পারে।

বহুদিনে অনুশীলনে আমরা নিশ্চিত হয়েছি যে, মানুষের রোগ সারানোর পদ্ধতীও একটাই, তা হল হ্রাসকৃত অক্সিজেন টক্সিনে ভরা ধীরগতি সম্পন্ন বিষাক্ত রক্ত প্রবাহকে বিশুদ্ধ করে তার স্বাভাবিক ও সাবলিল গতি ফিরিয়ে এনে জৈব বিদ্যুৎ প্রবাহের সমস্ত বাধাগুলো আকুপ্রেসার দ্বারা সরিয়ে দিলে ঔষধ ছাড়াই সমস্ত রোগ ধীরে ধীরে সেরে শরীর সুস্থ হয়ে উঠবে।

এই জন্য ন্যাচারোপ্যাথি সেন্টার মানুষের শরীরে নানান রোগ থেকে মুক্তি দিতে আকুপ্রেসার এবং খাদ্য পথ্য দ্বারা সকল রোগ নিরাময়ের প্রাচীন চিকিৎসা ব্যবস্থা সামনে নিয়ে এসেছে। এখানে ৬ দিনের প্যাকেজে মানুষের শরীরের বিশুদ্ধতা ফিরিয়ে আনার কলা কৌশল প্রয়োগ করা হয় যা সম্পূর্ণ প্রাকৃতিক এবং কোন ধরণের এল্যোপেথিক ঔষধ ব্যবহার হয় না ফলে এই চিকিৎসায় কোন ধরণের পার্শপ্রতিক্রিয়া নেই।
যে কোন জাটিল রোগ হউক না কেন এখানে ছয় দিনে রোগ মুক্তি লক্ষণ পাওয়া যাবে। পরবর্তিতে নিয়ম মেনে চললে অল্প দিনের মধ্যেই রোগ থেকে সম্পূর্ণ মুক্তি পাওয়া যাবে।

ছয়দিনের প্যাকেজে যা হবে
১. শরীর বিষমুক্ত হবে
২. শরীরের দূর্বলতা দূর হবে
৩. শরীরের ওজন কমে যাবে।
৪. পেটের সকল ধরণের পীড়া দূর হবে
৫. শ্বাস প্রশ্বাসের স্বাভাবিক গতি ফিরে আসবে
৬. শরীরের সকল ধরণের ব্যথা কমে যাবে
৭. বেঁচে থাকার অনুপ্রেরণা পাওয়া যাবে
৮. খাদ্য নিয়ন্ত্রণে কৌশল জানা যাবে
৯. ঘুমের সমস্যা দূর হবে
১০. মাথা ধরার সমস্যা থাকলে দূর হবে
১১. সর্দি কাশির সমস্য দূর হবে
১২. নাক, কান, গলার সমস্যা দূর হবে
১৩. হৃদপিন্ড সঠিক উপায়ে কাজ করবে
১৪. গ্যাস সমস্যা থাকবেনা
১৫. প্রস্রাব পায়খানার সমস্যা দূর হবে
১৬. যৌন সমস্যার সমাধানে র্কাযকর পদ্ধতী জানা যাবে
১৭. ডায়েবেটিসের নিয়ন্ত্রণ হবে (ঔষধ ছাড়াই)
১৮. উচ্চরক্ত চাপের জন্য ঔষধ পরিত্যাগ করা যাবে
১৯. কোলেষ্ট্রারাল নিয়ন্ত্রণে থাকবে
২০. ঔষধ বিহীন চলার আত্মবিশ্বাস পাওয়া যাবে।
আরো অনেক সমস্যার সমাধান হবে যা চিকিৎসা বিজ্ঞানে অনেক বিরল।

চিকিৎসার নিয়ম
1. রোগীকে আমাদের সেন্টারে থাকতে হবে,
2. রোগীকে বাহিরের কোন খাবার গ্রহন করতে পারবেনা
3. রোগীকে সম্পূর্ণ বিশ্রামে থাকতে হবে (বাহিরে থাকতে পারবে না)
4. রোগী আমাদের দেয়া পরামর্শ মত চলতে হবে
5. শরীরের ভারসাম্য বজায় রাখার জন্য খাদ্য পথ্য ও আকুপ্রেসার শিখিয়ে দেয়া হবে।

আমাদের এই প্যাকেজ শুরু হয়ে প্রতি শনিবার থেকে, আগ্রহীগণ আমাদের সাথে আগে যোগাযোগ করে নিবেন।

icon
ন্যাচারোপ্যথি সেন্টার
83, নয়াপল্টন, গাজীনীড়, ফ্লাট বি – 7, জোনাকী সিনেমা হলের বিপরীতে মসজিদ গলি।
শহীদ আহমেদ – 01715118889
আলমগীর আলম – 01611010011

SHARE

LEAVE A REPLY